শত শত নারী-পুরুষের

শ্লোগানে মুখরিত ১২নং ওয়ার্ড

আজ (মঙ্গলবার) থেকে আনুষ্ঠানিক প্রচারণা শুরু। কিন্তু তার আগেই (সোমবার) নগরীর খানপুরে গিয়ে দেখা যায়, আনুষ্ঠানিকতার একদিন পূর্বেই শত শত নারী-পুরুষ স্লোগানে শ্লোগানে মুখরিত করে রেখেছে মহল্লা। সাংবাদিকদের ক্যামেরা দেখে, সেই স্লোগানের উদ্দীপনা আর উৎসাহ যেন আরও বেড়ে যায়। সকলের মুখে একটাই শব্দ ‘শওকত ভাই’, ‘শওকত ভাই’। নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন নির্বাচনকে ঘিরে সোমবার (২৭ ডিসেম্বর) বিকালে ১২নং ওয়ার্ডে গিয়ে এই চিত্র দেখা মিলে।

ওয়ার্ডটির ৩ বারের নির্বাচিত কাউন্সিলর শওকত হাসেম শকু বলেন, প্রতীক বরাদ্দের আগে প্রচারণা নিষেধ। তাই আমি এখনও প্রচারণায় যায়নি। ওয়ার্ডবাসীর আগ্রহ থেকে তাঁরাই ক্যাম্পে ভীড় করছে। নির্বাচনী ক্যাম্পে এসে নিজেরাই এসে অতান্ত উদ্দীপনা ও উৎসাহের সাথে স্লোগান দিচ্ছে।
নারায়ণগঞ্জের প্রাণ কেন্দ্র উত্তর চাষাঢ়া এলাকা সিটি করপোরেশনের এই ওয়ার্ডটিতে রয়েছে।

এছাড়াও খানপুর সরদার পাড়া অংশ, মজিদ খানপুর, নিউ খানপুর (ব্যাংক কলোনী), ইসদাইর, মিশন পাড়া নিয়ে ১ দশমিক ৬১ বর্গ কিলোমিটারের এই ওয়ার্ডটি। লোক সংখ্যা প্রায় এক লাখ হলেও এবার ভোটার ২৬ হাজার ৮৪৪ জন। তাদের মাঝে ১৩ হাজার ৩৫০ জনই নারী ভোটা।

নির্বাচনে এবার এ ওয়ার্ডটি থেকে ৩ জন কাউন্সিলর পদে অংশ গ্রহণ নিচ্ছেন। তাদেরই একজন শওকত হাসেম শকু। বিশ্ব মহামারী করোনার সময় খাদ্য থেকে শুরু করে নগদ অর্থ ওয়ার্ডবাসীর ঘরে ঘরে পৌছে দিয়েছিলেন শওকত হাসেম শকু। সেই সময় কেউ মারা গেলে দাফন-কাফনের ব্যবস্থাও করেছিলেন এই জনপ্রতিনিধি। তাই সকলেই তাকে ‘শকু ভাই’ নামেই চেনে।

শওকত হাসেম শকুর নির্বাচনের অবস্থা জানতে চাইলে রোজিনা আক্তার নামের এক নারী উল্টো প্রশ্ন ছুড়ে বলেন, আমাদের বিপদে আপদে যেই শকু ভাইকে পেয়েছি, তাকে ছাড়া কাকে ভোট দিবো?

নির্বাচন নিয়ে শওকত হাসেম শকু বলেন, আপনদের দোয়ায় এবার নিয়ে চতুর্থ বারের মতো নির্বাচনে দাঁড়িয়েছি। যত বার দাঁড়িয়েছি, জনগণ আমাকে নির্বাচিত করেছে। সকলের সাথে আমার ভালো সম্পর্ক এবং এইটা কখন নষ্ট হবে না।

আরও পড়ুন

- Advertisement -

কমেন্ট করুন

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

ডেইলি নারায়ণগঞ্জে প্রকাশিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি এবং ভিডিও কন্টেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা আইনত দন্ডনীয় অপরাধ।

সর্বশেষ