ধলেশ্বরীতে নৌকা বাইচ উৎসবে আনন্দে ৭ ইউপি’র মানুষ

ধলেশ্বরী নদীতে নৌকা বাইচ প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়েছে। নৌকা বাইচকে ঘিরে আনন্দে ভাসছে ৭টি ইউনিয়নের ক্রীড়ামোদী মানুষ। সকাল থেকেই বিভিন্ন এলাকা থেকে দলবেঁধে মানুষ আসতে শুরু করে। দুপুর গড়াতে না গড়াতেই হাজার নারী-পুরুষ, বৃদ্ধ ও শিশু কিশোরে পরিপূর্ণ হয়ে ওঠে নদীর দু’পাড়। আশপাশের রাখা জাহাজ, গাছের ডালে, কিংবা নদীর দুই পাড়ে দাঁড়িয়ে অন্তত ১০ হাজার মানুষ উপভোগ করে গ্রাম বাংলার প্রাচীনতম অনুসঙ্গ নৌকা বাইচ। নৌকা বাইচে নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার ৭টি ইউনিয়ন ও স্থানীয় এমপি শামীম ওসমানের একটি দলসহ মোট ৮টি দল অংশ নেন।

ধলেশ্বরী নদীর ধর্মগঞ্জ ঘাট থেকে মঙ্গলবার (২৮ ডিসেম্বর) দুপুর ২টায় নৌকা বাইচ শুরু হয়। চলে সন্ধ্যা পর্যন্ত। বাইচে অংশ নেওয়া নৌকা গুলো ধর্মগঞ্জ ঘাট থেকে যাত্রা শুরু করে আলীরটেকের ডিগ্রিরচর যায়। পরে আবার ধর্মগঞ্জ ঘাটে এসে শেষ হয়।

আয়োজক কমিটির নিয়োগপ্রাপ্ত রেফারিগণ বাইচ পরিচালনা করেন।

নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. রিফাত ফেরদৌসের সভাপতিত্বে এই প্রতিযোগীতায় প্রধান অতিথি ছিলেন নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্য একেএম শামীম ওসমান।

বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা প্রশাসক মো. মোস্তাইন বিল্লাহ, নারায়ণগঞ্জের সাবেক মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার মোহাম্মদ আলী, নারায়ণগঞ্জ নৌ পুলিশ সুপার নিলা মাহমুদা, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. মোস্তাফিজুর রহমান।

নৌকা বাইচে প্রথম পুরস্কার ৩ লাখ, দ্বিতীয় ২ লাখ ও তৃতীয় পুরস্কার ১ লাখ টাকা ধরা হলেও প্রধান অতিথি সকলের মাঝে সমান করে ভাগ করে দেন পুরস্কারের এই টাকা। শহরের আশপাশ থেকেও অনেকেই অংশ নিয়েছিলেন নৌকা বাইচের উৎসবে।

এ সময় নৌকাবাইচে অংশ নেওয়া ব্যক্তিদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়ে শামীম ওসমান বলেন, নদীর দুই পাড়েই ছিল মানুষ আর মানুষ। ট্রলার ভাড়া করে, যে যার মতো করে সেই খেলা উপভোগ করেছে। এখানে বোরখা পড়েও অনেক নারী আসছে। যারা ট্রলার ভাড়া করে পরিবারের সাথে এই আনন্দের মুহুর্তটা উপভোগ করেছেন। আজকে আপনার যে আনন্দ আমাদের দিয়েছেন, সেটা স্মৃতি হয়ে থাকবে।

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন নারায়ণগঞ্জ মহিলা সংস্থার চেয়ারম্যান সালমা ওসমান লিপি, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) মো. তোফাজ্জল হোসেন, জেলা প্রশাসক মো. মোস্তাইন বিল্লাহ এর সহধর্মিণী নাসরিন সুলতানা, কুতুবপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মনিরুল আলম সেন্টু, এনায়েত ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আসাদুজ্জামান, গোগনগর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ফজর আলী, বক্তাবলী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান শওকত আলী, আলীরটেক ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মো. জাকির হোসেন প্রমুখ।

আরও পড়ুন

- Advertisement -

কমেন্ট করুন

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

ডেইলি নারায়ণগঞ্জে প্রকাশিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি এবং ভিডিও কন্টেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা আইনত দন্ডনীয় অপরাধ।

সর্বশেষ