মা-মেয়েকে হত্যা

রিমান্ড শেষে কারাগারে জোবায়ের

- Advertisement -

নারায়ণগঞ্জ শহরের ডাইলপট্টি এলাকায় মা ও সাত মাসের অন্তঃসত্ত্বা মেয়েকে হত্যার ঘটনায় গ্রেপ্তার আল জোবায়েরকে রিমান্ড শেষে কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত। রোববার (৬ মার্চ) বিকেলে জোবায়েরকে তিন দিনের রিমান্ড শেষে নারায়ণগঞ্জের সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট কাওসার আলমের আদালতে হাজির করা হয়। আদালত তাঁকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

নারায়ণগঞ্জ কোর্ট পুলিশের পরিদর্শক আসাদুজ্জামান বলেন, রিমান্ডে জিজ্ঞাসাবাদ শেষে আল জোবায়েরকে আদালতের মাধ্যমে করাগারে পাঠানো হয়েছে। গত মঙ্গলবার বেলা পৌনে ৩ টার দিকে নারায়ণগঞ্জ শহরের পাইকারি ব্যবসাকেন্দ্র ডাইলপট্টি এলাকায় ‘মাতৃভবন’ নামে ছয়তলা ভবনের ষষ্ঠতলার একটি ফ্ল্যাট থেকে রুমা চক্রবর্তী (৪৬) ও তাঁর মেয়ে ঋতু চক্রবর্তীর (২২) লাশ উদ্ধার করা হয়।

এ ঘটনায় আল জোবায়ের (২৬) নামে ওই যুবককে তিনটি ছুরিসহ ভবনটি থেকে আটক করে পুলিশ। এরপর তাঁকে আসামি করে নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন নিহত রুমা চক্রবর্তীর স্বামী রাম প্রসাদ চক্রবর্তী। পরে জোবায়েরকে জেলা গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) কাছে তিন দিনের রিমান্ডে পাঠান আদালত।

আজ ছিল রিমান্ডের শেষ দিন।তদন্তসংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ) মো. আমীর খসরু জানিয়েছেন, জোবায়েরের ব্যবহৃত ইলেকট্রনিক ডিভাইস পরীক্ষা করেছে পুলিশের কাউন্টার টেররিজম ইউনিট। এতে তাঁর জঙ্গিবাদ বা উগ্রবাদের কোনো সংশ্লিষ্টতা পাওয়া যায়নি। বাসা থেকে জব্দ করা ধর্মীয় বই থেকেও এ ধরনের কোনো আলামত মেলেনি।

জোবায়েরকে জিজ্ঞাসাবাদের বরাত দিয়ে তিনি বলেন, তিনি আহলে হাদিস পছন্দ করেন। তবে কাউকে রাজনৈতিক নেতা ও আদর্শ মানেন না। নিজে নিজে ধর্মীয় বই পড়েন ও ধর্মচর্চা করেন। প্রচণ্ড মানসিক অবসাদ ও হতাশা থেকে খুন দুটি করেছেন বলে জোবায়ের তাঁদের জানিয়েছেন।

আরও পড়ুন

- Advertisement -

কমেন্ট করুন

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

ডেইলি নারায়ণগঞ্জে প্রকাশিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি এবং ভিডিও কন্টেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা আইনত দন্ডনীয় অপরাধ।

সর্বশেষ

You cannot copy content of this page