সিদ্ধিরগঞ্জে

২০৩১’র জন্য নেতৃত্ব তৈরি করতে হবে : শামীম ওসমান

- Advertisement -

তুমি যদি মনে করো, তোমার সামনের রাস্তায় ফুল দিয়ে বিছানা করা, তাহলে তুমি ভুল। তোমার রাস্তায় কাটা লাগানো, তোমরা বেশির ভাগই মধ্যবিত্ত, নিম্ন মধ্যবিত্ত ঘরের সন্তান। তোমার বাবা মা সকাল থেকে রাত পর্যন্ত পরিশ্রম করে, নিজেরা না খেয়ে তোমাকে ভালো খাবারটা খাওয়ানোর চেষ্টা করে। স্বপ্ন দেখে আমার ছেলেটা মানুষ হবে, সংসারের হাল ধরবে। তাই শক্তি অর্জন করতে হবে, সেই শক্তিটি হলো সুশিক্ষায় শিক্ষিত হওয়া। প্রকৃত মানুষ হতে হবে। শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে সিদ্ধিরগঞ্জের রেবতী মোহন পাইলট স্কুল অ্যান্ড কলেজ মাঠে শুক্রবার (২৫ মার্চ) বিকেলে নবীন বরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে একথা বলেন একেএম শামীম ওসমান।

তার ভাষ্য, স্কুলের কে ফাস্ট বয়? আমি সেটা কেয়ার করি না। আমার কাছে বিষয় বস্তু হচ্ছে, কে শিক্ষিত আর কে শিক্ষিত না। কে ভালো মানুষ, কে ভালো মানুষ না। সিদ্ধিরগঞ্জ রেবতী মোহন পাইলট স্কুল অ্যান্ড কলেজের অধ্যক্ষ মো. নুর ইসলামের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি মো. মতিউর রহমান ব্যাপারী, সাধারণ সম্পাদক হাজী ইয়াছিন মিয়া।

শামীম ওসমান আরও বলেন, আমি তোমাদের কাছে একটা অনুরোধ করতে চাই। যদি জীবনে কিছু করতে চাও, যদি জীবনে যে কোন পাহাড়কে ভেঙ্গে বেড়িয়ে যেতে চাও, জীবনে মাথা উচু করে দাঁড়াতে চাও। তাহলে প্রথম শর্ত হচ্ছে মা বাবার প্রতি দায়িত্ব পালন করতে হবে। যে সন্তানের উপর তার মা ও বাবার দোয়া থাকে, আমি বিশ্বাস করি, তাকে কেউ ঠেকিয়ে রাখেতে পারবে না। বাবা-মা টাকা পয়সা চায় না, তারা চায় ভালোবাসা।

শামীম ওসমান বলেন, সামনে কঠিন সময় আসবে। সেই দিনটি কারো জন্য ভালো হবে আবার কারো জন্য খারাপ হবে না এমন নয়। এই আঘাতটা আসবে দেশকে শেষ করে দেওয়ার জন্য। একটা বঙ্গবন্ধু তৈরি হতে লাগে হাজার বছর, কিন্তু এখন মোস্তাক তৈরি হয় থানায়, থানায় ইউনিয়নে-ইউনিয়নে। আমার আগের মতো শক্তি নাই, কিন্তু মানুষিক শক্তি আছে পৃথীবির যে কোন শক্তির সাথে লড়াই করার মতো।

তিনি আরও বলেন, আমাদের আগামী প্রজন্মকে এখনই তৈরি করতে হবে। আমি সেদিনও তোলারাম কলেজে বলেছি, প্রতিটি কলেজ থেকে ছাত্রছাত্রী নিয়ে কমিটি তৈরি করতে। কোথায় কিভাবে কি করতে হবে জানাতে। কারণ এই দেশ তোমাদের। আগে একটা কলেজ ছিল, সেটা দিয়েই অনেক কিছু আটকে দিয়েছি, এখন এতগুলো কলেজ। এই ছাত্রছাত্রী, তোমরা যদি চায়, নারায়ণগঞ্জে কেউ মাদক বিক্রি করতে পারবে না, আমি চ্যালেঞ্চ করে বলতে পারি, কেউ মাদক বিক্রি করতে পারবে না। এই ছাত্রছাত্রীরা যদি চায়, কোন অন্যায়কে সহ্য করা হবে না। যে অন্যায় করবে, তার বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করবো, কারো ক্ষমতা নাই, নারায়ণগঞ্জে বসে অন্যায় করবে। এটা আমার বিশ্বাস। এই কলেজ গুলো থেকে ভালো ছেলে গুলো বের করেন। ছাত্রলীগ করার জন্য না। কারণ ২০৩১ সালে আমরা যে জায়গায় যেতে চাই, সেই জায়গার জন্য এখন থেকেই নেতৃত্ব তৈরি করতে হবে। তোমাদেরকেই মানুষের মতো মানুষ হয়ে বাংলাদেশের হাল ধরতে হবে।

শামীম ওসমান বলেন, ‘শামীম ওসমান কোন জায়গা থেকে এক পয়সা হারাম খায় না। আমার সমস্ত শরীরে আল্লাহর রহমতে হালাল রক্ত আছে, হারাম রক্ত নাই। আমরা চাই, একটা সুন্দর নারায়ণগঞ্জ। যেখানে কেউ ভূমি দস্যু হবে না। জমি দখল করবে না।

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন প্রচার সম্পাদক মো. তাজিম বাবু, স্কুল পরিচালনা কমিটির সভাপতি আব্দুর রব, মহানগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক শাহ নিজাম, সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামী যুবলীগের সভাপতি ও এনসিসির কাউন্সিলর মতিউর রহমান মতি, ১নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আনোয়ার ইসলাম, ৩নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর শাহজালাল বাদল, ১০নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর হাজী মো. ইফতেখার আলম খোকন, সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর মনোয়ারা বেগম ও আয়েশা আক্তার দিনা, সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক আমিনুল হক ভূঁইয়া রাজু ও থানা আওয়ামী লীগ নেতা মাহবুব হোসেন প্রমুখ।

আরও পড়ুন

- Advertisement -

কমেন্ট করুন

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

ডেইলি নারায়ণগঞ্জে প্রকাশিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি এবং ভিডিও কন্টেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা আইনত দন্ডনীয় অপরাধ।

সর্বশেষ

You cannot copy content of this page