ঢাকাশনিবার , ৩ ডিসেম্বর ২০২২
  1. আন্তর্জাতিক
  2. এক্সক্লুসিভ
  3. খেলা
  4. জাতীয়
  5. তথ্যপ্রযুক্তি
  6. নগর-মহানগর
  7. নাসিক-২০২১
  8. বিনোদন
  9. রাজনীতি
  10. লাইফ-স্টাইল
  11. লিড
  12. লিড-২
  13. লোকালয়
  14. শিক্ষা
  15. শিক্ষাঙ্গন

যুবদল নেতাকে ছাড়াতে ফতুল্লা থানায় আ’লীগ নেতাদের তদবির!

আবু বকর
ডিসেম্বর ৩, ২০২২ ৫:৪৩ অপরাহ্ণ
Link Copied!

নাশকতা মামলায় ফতুল্লা পুলিশের হাতে গ্রেপ্তার হওয়া এক বিএনপি নেতাকে ছাড়াতে তদবিরের অভিযোগ উঠেছে আ’লীগ নেতাদের বিরুদ্ধে। অভিযুক্তরা হলেন ফতুল্লা থানা আ’লীগের সভাপতি এম সাইফউল্লাহ বাদলের ভাই খোকন, কাশীপুর ২নং ওয়ার্ড যুবলীগ নেতা পলাশ। শনিবার (৩ ডিসেম্বর) সকাল থেকে বেলা ১২টা পর্যন্ত তাদেরকে থানার গেটে দেখা গেছে। পুলিশের সাথে গ্রেপ্তারকৃত বিএনপি নেতা রাকিবকে ছাড়াতে তদবিরও করেন তারা।থানা পুলিশের একটি সূত্র নিশ্চিত করে প্রতিবেদক কে জানায়, তারা এসেছিলো যুবদল নেতা রুবেল কে থানা হাজত থেকে ছাড়িয়ে নিতে।জানা যায়, ফতুল্লা থানায় দায়ের করা নাশকতা মামলার  আসামি মুকুল ও তার ছেলে রাকিবকে ধরতে শুক্রবার রাতে কাশীপুর এলাকায় অভিযান চালায় ফতুল্লা মডেল থানা পুলিশ। এ সময় মুকুলকে বাসায় না পেলেও তার পুত্র যুবদল নেতা রাকিবকে গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে আসে পুলিশ। শনিবার সকাল থেকেই কাশীপুর যুবদলের এ নেতাকে ছাড়িয়ে নিয়ে থানায় আসেন সাইফউল্লাহ বাদলের ভাই খোকন, যুবলীগ নেতা পলাশসহ বেশ কয়েকজন আ’লীগ নেতা। তারা পুলিশের সাথে আলোচনাও করেন ছাড়িয়ে নিতে। কিন্তু নাশকতা মামলার আসামি হওয়ায় তাকে ছাড়েনি পুলিশ। তবে আ’লীগ নেতারা চেষ্টা চালিয়েছেন শেষ মুহুর্ত পর্যন্ত।নাম প্রকাশ না করার শর্তে কাশীপুর ইউনিয়ন যুবলীগের এক নেতা জানান, স্থানীয় বিএনপি নেতাদের প্রশ্রয় দাতা হিসেবে সাইফউল্লাহ বাদলের ভাই খোকনের নাম জড়িয়ে আছে আগে থেকেই। যুবলীগ নেতা পলাশ নিজেও রাজনীতি করছেন যুবদল-ছাত্রদলের পদধারী নেতাদের নিয়ে। কাশীপুর ইউনিয়নে যারা আ’লীগের ত্যাগী নেতা তারা এখন আর মূল্যায়ন পান না এসব হাইব্রিডদের কারনে। ইউনিয়ন আ’লীগকে শক্তিশালী করতে হলে এসব দু’মুখো আ’লীগ নেতাদের দল থেকে বিতাড়িত করতে হবে। 

বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।