গ্যাস বিস্ফোরণে আরও ১ মৃত্যু

নিজস্ব প্রতিবেদক, ফতুল্লা:

লাল খাঁর মোড়ে গ্যাসের লিকেজ থেকে বিস্ফোরণের ঘটনায় আরও এক নারীর মৃত্যু হয়েছে। শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সোমবার (১৫ নভেম্বর) সকাল সাড়ে ছয়টার দিকে তাঁর মৃত্যু হয়। এ নিয়ে ওই দূর্ঘনায় তিন জনের মৃত্যু হলো। নিহত ওই ব্যক্তির নাম ঝুমা রানী (১৯)। এর আগে নিহত দু’জন হলেন মায়া রানি (৪৫) ও শিবু রানি (৩২)। তাঁরা সকলেই সিলেটের বাসিন্দা। গত ১২ নভেম্বর সেহাচর লাল খাঁ এলাকায় মোক্তার হোসেনের পাঁচতলা বাড়ির নিচতলার ওই ফ্ল্যাটে বিকট শব্দে বিস্ফোরণে ঘটে।

বিস্ফোরণে ওই ফ্ল্যাটসহ পাশের একটি বাড়ি ও একটি দোকানের দেয়াল ধসে পড়ে। বিস্ফোরণের সময় ঘটনাস্থলেই দেয়ালচাপা পড়ে মায়া রানির মৃত্যু হয়। দুর্ঘটনার পর আহত ব্যক্তিদের উদ্ধার করে হাসপাতালে নেওয়ার পর শিবু রানির মৃত্যু হয়। এরপর ৩ দিন চিকিৎসাধীন থেকে ঝুমা রানীর (১৯) মৃত্যু হলো। এখন চিকিৎসাধীন রয়েছে নিহত ঝুমা রানীর মা তুলসী রানী (৫৫)।

এ ঘটনায় আহত আরও ৪ চিকিৎসা নিয়ে বাড়ি ফিরেছেন। শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটের আবাসিক সার্জন এসএম আইউব হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, ফতুল্লা থেকে গ্যাস বিস্ফোরণ হয় ৬ জন বার্নে এসেছে। তাদের মধ্যে চারজনকে চিকিৎসা দিয়ে ছেড়ে দেয়া হয়েছে। ও দুইজনকে ভর্তি দেওয়া হয়েছিল। চিকিৎসাধীন অবস্থায় আজ সোমবার (১৫ নভেম্বর) ঝুমা রানী সকাল সাড়ে ছটার সময় মারা যান। তার শরীরে ৫০ শতাংশ দগ্ধ ছিল।

ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জ(পরিদর্শক) মোঃবাচ্চু মিয়া বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, ফতুল্লা লালখার মোড় এলাকা থেকে একই পরিবারের ৬ জন শেখ হাসিনা জাতীয় বার্নে দগ্ধ অবস্থায় এসেছে। তাদের মধ্যে চারজনকে চিকিৎসা দিয়ে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে ও দু’জনকে ভর্তি দেওয়া হয়েছে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আওয়াজ সকাল সাড়ে ছটার সময় ঝুমা রানী মারা যান। নিহতের মা তুলসী রানী চিকিৎসাধীন রয়েছে।

আরও পড়ুন

- Advertisement -

কমেন্ট করুন

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

ডেইলি নারায়ণগঞ্জে প্রকাশিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি এবং ভিডিও কন্টেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা আইনত দন্ডনীয় অপরাধ।

সর্বশেষ