কাউন্সিলর আশার বিরুদ্ধে

মাঝিদের উপর যুলুমের অভিযোগ

- Advertisement -

নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের ২৩নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আবুল কাউসার আশার বিরুদ্ধে মাঝিদের উপর যুলুমের অভিযোগ তুলেছেন বন্দর ৫ নং ঘাটের নৌকার মাঝিরা। কাউন্সিলর যদি তার নির্দেশনা পরিবর্তন না করে তাহলে রাস্তায় নামার হুমকিও দিয়েছেন মাঝি সমিতি। ২৪ শে ফেব্রুয়ারী বৃহস্পতিবার সকালে বন্দর ৫ নং ঘাটের মাঝি সমিতির নেত্রীবৃন্দ ও নৌকার মাঝিরা এসব কথা বলেন।

বন্দর ৫ নং ঘাটের মাঝি সমিতির সভাপতি আব্দুল মতিন ও সাধারন সম্পাদক শহিদ মিয়া বলেন, নারায়ণগঞ্জ প্রতিটি ঘাটে হাতে চালিত ও ইঞ্জিনচালিত নৌকার ভাড়া পাঁচ টাকা করে নেওয়া হয়। তাই আমরা করোনার কারনে লোক কম নিয়ে পাঁচ টাকা করে নেই। কিন্তু আমাদের ২৩নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর আবুল কাউসার আশা আমাদের তার অফিসে ডেকে নিয়ে বলেন আজ থেকে ঘাটে পারাপারের জন্য জন প্রতি তিন টাকা করে নিতে হবে। আমরা কাউন্সিলরকে অন্য ঘাটের সাথে তুলনা করি এবং বাজারের দ্রব্যের মূল্যর কথা বলি কিন্তু সে বলেন আমি যা বলেছি তাই তিন টাকার বেশি নিতে পারবেন না। পরে তার চাচা সাবেক উপজেলার চেয়ারম্যান আতাউর রহমান মুকুলকে বিষয়টা জানালে সে বলেন আমি আশার সাথে কথা বলে জানাচ্ছি কিন্তু আমাদের আর কিছু জানায়নি কাউন্সিলর হয়ে এক রকম আমাদের উপর যুলুমই চালাচ্ছেন তিনি।

এব্যপারে নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের ২৩নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আবুল কাউসার আশার সাথে আলাপ কালে বলেন, আমার নির্বাচনের সময় এলাকা বাসির কাছে ওয়াদা দিয়েছিলাম ঘাটের ভাড়া কমাবো তাই তাদের তিন টাকা করে নিতে বলেছি। আমার এলাকাবাসির সুবিধা আমার দেখতে হবে মাঝিদের চেয়ে অনেক গরিব মানুষ এই ঘাট দিয়ে পাড় হয় তাদের কথা চিন্তা আমার করতে হবে। আগে এই ঘাটের ভাড়া ছিলো ২ টাকা এখন তিন টাকা নিতে বলছি তার পরেও তাদের হয় না কেনো।

আরোও পড়ুন

- Advertisement -

কমেন্ট করুন

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

ডেইলি নারায়ণগঞ্জে প্রকাশিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি এবং ভিডিও কন্টেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা আইনত দন্ডনীয় অপরাধ।

সর্বশেষ

You cannot copy content of this page