ঢাকাসোমবার , ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২
  1. আন্তর্জাতিক
  2. এক্সক্লুসিভ
  3. খেলা
  4. জাতীয়
  5. তথ্যপ্রযুক্তি
  6. নগর-মহানগর
  7. নাসিক-২০২১
  8. বিনোদন
  9. রাজনীতি
  10. লাইফ-স্টাইল
  11. লিড
  12. লিড-২
  13. লোকালয়
  14. শিক্ষা
  15. শিক্ষাঙ্গন

১৭ বছরের মাথায় জেলা যুবলীগের সম্মেলন

আবু বকর সিদ্দিক
সেপ্টেম্বর ২৬, ২০২২ ৫:১২ অপরাহ্ণ
Link Copied!

দীর্ঘ ১৭ বছরের মাথায় হতে চলেছে নারায়ণগঞ্জ জেলা যুবলীগের সম্মেলন। কয়েক বছর পর গতকাল সোমবার জেলা যুবলীগের বর্ধিত সভায় এমন সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। কয়েকত ঘন্টা ব্যাপী চলা ঐ সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কেন্দ্রীয় যুবলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সুব্রত পাল। তিনি জানিয়েছেন, সম্মেলনের মধ্য দিয়েন নারায়ণগঞ্জ জেলা যুবলীগের নতুন কমিটি গঠন করা হবে।জানা গেছে, ২০০৫সালের অক্টোবরে জেলা যুবলীগের সম্মেলনের পর এখনও পর্যন্ত নতুন সম্মেলন করতে ব্যর্থ হয়েছেন বর্তমান কমিটির নেতারা। এমনকি গত কয়েক বছরে জেলা যুবলীগের কার্যকরী কমিটির কোন সভা হয়েছে কিনা কিংবা শেষ কবে সভা হয়েছিল সেটিরও সঠিক তথ্য নেই কমিটির অনেকের কাছেই। এর মধ্যে জেলা যুবলীগের সভাপতি, সাধারন সম্পাদক, যুগ্ম সম্পাদকসহ অনেকেই এখন মূল দল আওয়ামীলীগের শীর্ষ পর্যায়ের নেতা।সোমবার অনুষ্ঠিত বর্ধিত সভায় জেলা যুব লীগের সভাপতি আব্দুল কাদিরের সভাপতিত্ব ও সাধারণ সম্পাদক আবু হাসনাত মো. শহীদ বাদলের সঞ্চালনায় প্রধান বক্তা ছিলেন কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক শহিদুল হক রাসেল, বিশেষ অতিথি জনশক্তি ও কর্মসংস্থান বিষয়ক সম্পাদক লায়ন শাহীন মালুম। অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য আল আমিন ও সাজু সাহা।এসময় কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বাবু সুব্রত পাল বলেন, আগামীতে সুন্দর দক্ষ লোকের নেতৃত্ব বর্তমান কমিটি পরিচালনার জন্য পরামর্শসহ সহযোগী চাইছি। পাশাপারি অন্যান্য কমিটির অবস্থা কি? জানতে চাইছি। সম্মেলনের মাধ্যমেই কমিটি হবে।বর্ধিত সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন জেলা যুব লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক জাকিরুল আলম হেলাল, নারায়ণগঞ্জ শহর যুব লীগের সভাপতি শাহাদাত হোসেন সাজনু, ফতুল¬া থানা যুব লীগের সভাপতি মীর সোহেল আলী, সোনারগাঁ উপজেলা যুব লীগের সভাপতি রফিকুল ইসলাম নান্নু, সাধারণ সম্পাদক মো. আলী হায়দার, সিদ্ধিরগঞ্জ থানার যুবলীগের আহ্বায়ক মতিউর রহমান মতি, ফতুল¬া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান খন্দকার লুৎফর রহমান স্বপন, আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি মোহসীন মিয়া, যুবলীগ নেতা জিল¬ুর রহমান লিটন প্রমূখ।সবশেষ ২০০৫ সালে নারায়ণগঞ্জ জেলা যুবলীগের কমিটি গঠন করা হয়। সম্মেলনে আবদুল কাদির সভাপতি ও অ্যাডভোকেট আবু হাসনাত মোহাম্মদ শহীদ বাদল সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হন। বৈরি সময়ে ওই সম্মেলনে ছিল আওয়ামীলীগের দুই পক্ষের অবস্থান। এছাড়াও সম্মেলনে প্রতিদ্বন্দ্বীতা করা জাকিরুল আলম হেলালকে করা হয় সিনিয়র সহ-সভাপতি, আসিফ হোসেন মানুকে সহ-সভাপতি ও শাহ নিজামকে করা হয় যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক। এরপর দীর্ঘ প্রায় ১৬ বছর পেরিয়ে গেলেও নতুন কোনো কমিটির কমিটির দেখা মিলছিল জেলা যুবলীগের।তৎকালীন সময়ে জেলা যুবলীগের কমিটিতে পদে নেতারা অনেকেই মূল দলে ভিড়িয়েছেন। এদের মধ্যে শাহ নিজাম মহানগর আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক, জাকিরুল আলম হেলালকে সাংগঠনিক সম্পাদক করা হয়েছে। একইভাবে অন্যদিকে আবু হাসনাত মোহাম্মদ শহীদ বাদলকে জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক করা হয়েছে। এছাড়াও জেলা যুবলীগ সভাপতি আবদুল কাদির জেলা আওয়ামীলীগের সহ সভাপতি পদে স্থান পেয়েছেন।

বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।