জনগণের সেবক পুলিশ জনগণের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দিচ্ছে : গিয়াস

নারায়ণগঞ্জ জেলা বিএনপির আহবায়ক বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. গিয়াসউদ্দিন বলেছেন, সরকারি দল আওয়ামী লীগ বিএনপিকে ভয় পায়। তারা বিএনপিকে রাজনৈতিকভাবে মোকাবেলা করার সাহস অনেক আগেই হারিয়ে ফেলেছে। তাই তারা পুলিশের উপর ভর করে মামলা হামলা দিয়ে বিএনপির নেতাকর্মীদেরকে দমিয়ে রাখতে চাইছে। নারায়ণগঞ্জ বিএনপি ও অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীদের নামে একের পর এক মিথ্যা মামলা দিয়ে তাদেরকে হয়রানি করা হচ্ছে। নারায়ণগঞ্জ জেলা বিএনপির পক্ষ থেকে আমি এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই। সেইসাথে প্রশাসনের উদ্দেশ্যে বলতে চাই, আপনারা কোনো ব্যক্তি বা দলের লোক নন, আপনারা রাষ্ট্রের সেবক জনগণের সেবক। দেশের মানুষের নিরাপত্তা রক্ষায় আপনাদেরকে রাখা হয়েছে। দেশের রাজনীতিতে রাজনৈতিক দলগুলোর মধ্যে প্রতিযোগিতা থাকতেই পারে। সেক্ষেত্রে রাজনৈতিক মামলায় রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ বাদী হবেন। কিন্তু আশ্চর্যজনকভাবে দেখা যাচ্ছে জনগণের সেবক পুলিশ জনগণের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দায়ের করছে। এটা খুবই নিন্দনীয় এবং ঘৃণিত অপরাধ। এর জন্য আমরা মুক্তিযুদ্ধ করি নাই। পুলিশকে রাখা হয়েছে দেশের মানুষের জানমাল রক্ষা করার জন্য। সেই রক্ষকই এখন ভক্ষকের ভূমিকা অবতীর্ণ হয়েছে। আর এই কাজটা করেছে এই অবৈধ মিডনাইট সরকার। তাই এ সরকারকে আর ক্ষমতায় রাখা যায় না। সে লক্ষ্যে ঢাকা বিভাগীয় সমাবেশ সফল করে সরকারকে হুঁশিয়ার করে দিতে হবে, সরকারকে বুঝিয়ে দিতে হবে দেশের মানুষের আস্থা আর তাদের উপর নেই।আগামী ১০ডিসেম্বর ঢাকা বিভাগীয় গণসমাবেশকে সফল করার লক্ষ্যে নারায়ণগঞ্জ জেলা বিএনপি ও অঙ্গসংগঠনের উদ্যোগে প্রস্তুতিমূলক সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি এসব কথা গুলো বলেন।রোববার (২৭ নভেম্বর) বিকেল তিনটায় রাজধানীর নয়া পল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে নারায়ণগঞ্জ জেলা বিএনপির উদ্যোগে এই সভার আয়োজন করা হয়।তিনি বলেন, আগামী ১০ ডিসেম্বর ঢাকা বিভাগীয় সমাবেশ সফল করার লক্ষ্যে ইতিমধ্যে নারায়ণগঞ্জ বিএনপি ও প্রতিটি অঙ্গ সংগঠন তাদের ইউনিট পর্যায়ে একাধিকবার প্রস্তুতি সভা করেছেন। নিজেদের মধ্যে আলাপ আলোচনা করে বিভাগীয় সমাবেশ সফল করতে প্রয়োজনীয় সকল ব্যবস্থা গ্রহণ করেছেন। তারপরেও আজকের এই সভা আয়োজন করার একটাই লক্ষ্য আর তা হলো আমাদের নতুন কমিটির সাথে থানা পর্যায়ের নেতৃবৃন্দের খোলাখুলি আলোচনা। এতে করে সকলে নতুনভাবে অনুপ্রাণিত হয়েছে এবং আগামী ১০ তারিখের ঢাকা বিভাগীয় সমাবেশ সফল করতে প্রয়োজনীয় দিকনির্দেশনা পেয়েছেন।তিনি আরো বলেন, বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান আগামীর রাষ্ট্রনায়ক তারেক রহমান প্রত্যাশা করেন ঢাকা বিভাগীয় সমাবেশে নারায়ণগঞ্জের নেতাকর্মীরা গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে। ঢাকার সবচেয়ে নিকটবর্তী জেলা হওয়ায় নারায়ণগঞ্জের প্রতি কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দেরও প্রত্যাশা অনেক। সকলের প্রত্যাশা পূরণে আমরা বদ্ধপরিকর।উপস্থিত নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে মোঃ গিয়াস উদ্দিন বলেন, আমাদের প্রথম কাজ হচ্ছে সংগঠনকে গতিশীল করা। আর সেটা করতে হলে সর্বপ্রথম প্রয়োজন আমাদের ঐক্যবদ্ধ হওয়া। আমাদের প্রথম এবং একমাত্র পরিচয় হলো আমরা বিএনপি করি। আমাদের মাঝে নেতৃত্বের প্রতিযোগিতা থাকতেই পারে, তা না হলে নেতৃত্বের বিকাশ ঘটবে না। কিন্তু সেই প্রতিযোগিতায় আমরা জেলা বিএনপির আহবায়ক কমিটির কেউ জড়িত হবো না। আমরা কাউকে নেতা বানাবো না, যার যার যোগ্যতায় সে নেতৃত্ব অর্জন করবে।সভায় আগামী ১০ডিসেম্বর ঢাকা বিভাগীয় গণসমাবেশকে সফল করার লক্ষ্যে নারায়ণগঞ্জ জেলা বিএনপির আওতাধীন সকল উপজেলা, পৌরসভা, ইউনিয়ন ও ওয়ার্ড পর্যায়ের বিএনপি ও অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মীরা জেলা বিএনপির সাথে ঐক্যবদ্ধ হয়ে সেই গণসমাবেশ সফল করবে বলে আশা ব্যক্ত করে বক্তব্য রাখেন।নারায়ণগঞ্জ জেলা বিএনপির আহ্বায়ক বীর মুক্তিযোদ্ধা মুহাম্মদ গিয়াস উদ্দিনের সভাপতিত্বে ও সদস্য সচিব গোলাম ফারুক খোকনের সঞ্চালনায় সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন বিএনপির কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য আজহারুল ইসলাম মান্নান, নারায়ণগঞ্জ জেলা বিএনপির যুগ্ম আহ্বায়ক মনিরুল ইসলাম রবি, শহিদুল ইসলাম টিটু, মাশুকুল ইসলাম রাজিব, লুৎফর রহমান খোকা, মোশারফ হোসেন, জুয়েল আহম্মেদ, জেলা বিএনপির সাবেক ভারপ্রাপ্ত আহ্বায়ক নাসির উদ্দিন, আড়াইহাজার উপজেলা বিএনপি’র সভাপতি ইউসুফ আলী ভূঁইয়া, সাংগঠনিক সম্পাদক নাজমুল হাসান বাচ্চু, ফতুল্লা থানা বিএনপির আহ্বায়ক জাহিদ হাসান রোজেল, যুগ্ম আহ্বায়ক রুহুল আমিন শিকদার, রূপগঞ্জ উপজেলা বিএনপি’র আহ্বায়ক মাহফুজুর রহমান হুমায়ূন, সদস্য সচিব বাছির উদ্দিন বাচ্চু, ফতুল্লা থানা বিএনপির সাবেক সভাপতি অধ্যাপক খন্দকার মনিরুল ইসলাম, বিএনপি নেতা কাউন্সিলর ইকবাল হোসেন, আড়াইহাজার পৌরসভা বিএনপির সভাপতি মোহাম্মদ উল্লাহ লিটন, জেলা যুবদলের আহ্বায়ক সদস্য সচিব মশিউর রহমান রনি, সাবেক সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সহিদুর রহমান স্বপন, সাবেক যুগ্ম সম্পাদক রাসেল রানা, জেলা মৎস্যজীবী দলের আহ্বায়ক এড. এইচ এম আনোয়ার হোসেন,জেলা শ্রমিক দলের সভাপতি মন্টু মেম্বার, সাধারণ সম্পাদক মজিবুর রহমান, জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি আনোয়ার সাদাত সায়েম,সাধারণ সম্পাদক মাহবুব রহমার, সিনিয়র যুগ্ম সম্পাদক শাহ আলম ভূঁইয়া, সাংগঠনিক সম্পাদক সালাউদ্দিন সালু, যুগ্ম সম্পাদক নাসির উদ্দিন, সহ-সভাপতি রাসেল মাহমুদ, জেলা মহিলা দলের সভানেত্রী রহিমা শরীফ মায়া, সাধারণ সম্পাদক রুমা আক্তার, জেলা তাঁতীদলের সভাপতি এড. শুক্কুর মাহমুদ, জেলা ওলামা দলের সাধারণ সম্পাদক মাওলানা জাকারিয়া, জেলা জাসাসের সভাপতি সিরাজুল ইসলামসহ বিএনপি ও অঙ্গসংগঠনের নেতৃবৃন্দ।

- Advertisement -

কমেন্ট করুন

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

ডেইলি নারায়ণগঞ্জে প্রকাশিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি এবং ভিডিও কন্টেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা আইনত দন্ডনীয় অপরাধ।

সর্বশেষ